লিনাক্স swap area, র‍্যাম ও হার্ডডিস্ক

পোস্ট টি একেবারেই আমার মত নবীনদের জন্য। লিনাক্স ওপারেটিং সিস্টেম (ফেডোরা, উবুন্টু ইত্যাদি) সেটাপ দেবার সময় হার্ডডিস্কের পার্টিশনে swap area তৈরি করতে হয়। স্বাভাবিক ভাবেই আমার প্রশ্ন ছিল এই swap area কি কাজে লাগে :-*


লিনাক্স সেটাপ করতে গেলে আমাদেরকে হার্ডডিস্ক পার্টিশনের সময় দুটি ফরম্যাট এর জন্য প্রয়োজনীয় স্পেস নির্ধারণ করে দিতে হয়। একটি হচ্ছে ext3 বা ext4 যা লিনাক্সের ফাইল সিস্টেম। এই অংশে লিনাক্সের root বা “/” পয়েন্ট করে দিতে হয় (Mount Point)। যার মানে কিনা লিনাক্স অপারেটিং সিস্টেমের যাবতীয় ফাইলসহ ইউজারের যাবতীয় সকল ফাইল এই অংশেই থাকবে।

তাহলে swap area টা কি কাজে লাগে? ext3/ext4 যেমন রুট কে পয়েন্ট করে থাকে, swap সেইরকম কাউকে পয়েন্ট ও করে না (পয়েন্ট করা মানে হল কোন কোন ফাইল হার্ডডিস্কের এই পারটিশনে সেইভ হবে ~ সহজ কথায়)। এখানেই আমার প্রশ্ন ছিল swap তাহলে কি কাজে ব্যবহৃত হয় ও swap এর জন্য কতটুকু এলাকা (size) নির্ধারণ করব।:-*

যাইহোক, swap এর কাজটা মুলত এমন: swap কম্পিউটারের RAM (ফিজিকাল মেমরি, মানে যেই মেমরি হাতে ধরা যায় :P) এর সাহায্যকারী হিসেবে কাজ করে। RAM হচ্ছে কম্পিউটারের মূল মেমরি বা স্মৃতি, যাকে Physical Memory বলে। কারণ এটা একটা ডিভাইস, যা চাইলেই হাত দিয়ে খুলে ফেলা যায়, নতুন একটা র‌্যাম লাগানো যায় ইত্যাদি। র‌্যামের কাজটা হল এরকম: আপনি যখন একটা সফ্টওয়্যার চালাবেন, তখন সেই সফ্টওয়্যারের যাবতীয় তথ্যাদি হার্ডডিস্কের কোন একটা অংশ থেকে র‌্যামে এসে জমা হবে। একই সাথে সেই সফ্টওয়য়ার যেসব ফাইলকে ব্যব হার করবে সেই সব ফাইল ও হার্ডডিস্ক থেকে র‌্যামে এসে জমা হয়। কম্পিউটারের সি.পি.ইউ তখন র‌্যাম থেকে ডাটা নিয়ে প্রয়োজনীয় কাজ-কর্ম করে থাকে।

তাহলে প্রশ্ন হল সি.পি.ইউ কেন হার্ডডিস্ক থেকে সরাসরি ডাটা নিয়ে কাজ করতে পারে না? ব্যাপরাটা হল এরকম: হার্ডডিস্ক র‌্যামের তুলনায় অনেক ধীর গতি তে কাজ করে। হার্ডডিস্ক কাজ করে মিলিসেকেন্ডে, যেখানে র‌্যাম কাজ করে ন্যানোসেকেন্ডে। র‌্যামের থেকেও দ্রুতগতিতে কাজ করে ক্যাশ আর সি.পি.ইউ। মানে হল হার্ডডিস্ক থেকে সরাসরি ডাটা নিয়ে কাজ করতে গেলে সি.পি.ইউ এর বারোটা বেজে যবে :(( তাই হার্ডডিস্ক থেকে সরাসরি কোন ডাটা নিয়ে কাজ না করে প্রথমে তাকে র‌্যামে নিয়ে আসা হয়। কাজ শেষ হলে আবার সেটা হার্ডডিস্কে ফিরে যায়।

এখন আপনি সফ্টওয়ার/ফাইল নিয়ে কাজ করার সময় এমন পরিস্হিতি হতে পারে: যে সফ্টওয়ার/ফাইল এর আকার র‌্যামের থেকে অনেক বড়। বা অনেক বেশি ফাইল নিয়ে একই সাথে কাজ করার সময় র‌্যাম পূর্ণ হয়ে যেতে পারে। তখন ই SWAP কাজে লাগে। অর্থাৎ , SWAP র‌্যামের সাহায্যকারী হিসেবে কাজ করে। যেমন টা করে থাকে উইনডোজ এর ভারচুয়াল মেমরি। লিনাক্স র‌্যামকে ছোট ছোট অংশে ভাগ করে, যাকে pages বলা হয়। Swapping করার সময় এই pages কে আগে থেকেই প্রস্তুত করে রাখা হার্ডডিস্কের বিশেষ পারটিশনে নিয়ে যাওয়া হয়। তখন র‌্যামের সেই সব অংশ খালি হয়ে যায়, ফলে র‌্যাম আবার নতুন নতুন ডাটা নিয়ে কাজ করতে পারে। আপনি নিশ্চয়ই বুঝে ফেলেছেন যে এই বিশেষ পারটিশনটাই হল swap space।

Swapping মূলত দুটি কাজে লাগে। প্রথম টি হল র‌্যাম বেশি পূর্ণ হয়ে গেলে র‌্যামের অংশবিশেষ “FREE” করা, যাতে র‌্যাম অন্য ফাইল/এপ্লিকেশন নিয়ে কাজ করতে পারে।

২য়টি কারণটিও গুরুত্বপূর্ণ। অনেক এপ্লিকেশন(সফ্টওয়্যার) যখন চালু (run) করা হয়, তখন কিছু কিছু অংশ ভেরিয়েবল ডিক্লেয়ার, ইনিশিয়ালাইজেশন অর্থাৎ প্রারম্ভিক কাজ-কর্ম করার জন্য ব্যবহার করা হয়, যা পরে আর কোন কাজে আসে না। এই সব অংশ বা page কে swap space এ পাঠিয়ে দিয়ে র‌্যাম অনেকটাই নির্ভার হতে পারে।

Swapping এর নেতিবাচক দিক ও আছে। আমরা আগেই জেনেছি যে Swap হল হার্ডডিস্কের বিশেষ একটা পারটিশন। হার্ডডিস্ক যেহেতু র‌্যাম থেকে অনেক ধীরগতির, তাই অনেক বেশি Swapping করা হলে কম্পিউটারের গতি কমে যাবে। সেক্ষেত্রে র‌্যাম এর পরিমাণ বাড়ানোই একমাত্র সমাধান।

Swap এর সাইজ কেমন হওয়া উচিৎ? র‌্যামের দ্গিগুণ পরিমাণ Swap রাখা ভাল। অর্থাৎ র‌্যাম যদি ৫১২ মে.বাইট হয় তাহলে Swap নির্ধারণ করে দিতে হবে ১ গিগাবাইট। রেফারেন্স: Click This Link

Swap সম্পর্কে আরো জানতে আর অ্যাডভান্সড ইউজার হিসেবে Swap নিয়ে কাজ করতে নিচের পাতাগুলো সাহায্য করবে। Click This Link

পুরো আরটিকেল এর রেফারেন্স: http://www.linux.com/feature/121916

হার্ডডিস্ক, র‌্যাম, Swap নিয়ে কোন তথ্যে অনিচ্ছাকৃত ভুল থাকলে তা সংশোধন করে দেবার অনুরোধ থাকল

Advertisements
Comments
3 Responses to “লিনাক্স swap area, র‍্যাম ও হার্ডডিস্ক”
  1. তারেক বলেছেন:
    কম ব়্যাম হলে swap পার্টিশন ব্যবহার করতে হবে। কিন্তু বেশী ব়্যাম থাকলে, যেমন ২ গিগা বা তার বেশী হলে swap দরকার হয় না। আমার ব়্যাম ২ গিগা, তাই আমি swap পার্টিশন করি না।
  2. Partho বলেছেন:

    Good evening Vaiya,
    Ami ubuntu er 1jon new user. Windows 7 er modhdhe Ubuntu setup diyechi, jevabe amra windos a onnanno software install kori, kuno SWAP partition kori ni. Ete ki kuno somossa hobe. Ullekhkho amar REM 2 GB.

    Sunechi windods er software WINE er maddhome ubuntu te install kora jay. Se khetre software tir properties a giye permission theke “ADD EXECUTING FILE AS PROGRAM” er pase tik dite hoy. Kintu amar PC te kichui hochche na(tik deya jachche na). Eta ki SWAP partition na thakar karone.

    Se khetre Ubuntu reinstall na kore ki SWAP partition kora jabe?

    Ami Ubuntu 10.10 install korechi (Somvoboto webi use kore, karon aj net a webi er interface dekhe mone holo ami jokhon install kori tokhon o ai rokom option chilo)

    Somadhan pele khub e upokrito hobo.

    • Tareq বলেছেন:

      আপনি যেভাবে ইন্সটল করেছেন, সেক্ষেত্রে মূল অসুবিধা হচ্ছে উইন্ডোজ কোনভাবে করাপ্ট হয়ে গেলে উবুন্টুও করাপ্ট হয়ে যাবে। আর উবুন্টু ফেরত পাবেন না, আবার ইন্সটল করতে হবে।

      আপনার ব়্যাম যেহেতু ২ গিগা, সেহেতু সোয়াপ পার্টিশনের তেমন দরকার নাই। আমার ২ গিগা ব়্যামে আমিও সোয়াপ ব্যবহার করিনা।
      আর ওয়াইন দিয়ে সফটওয়ার ইন্সটল করতে হলে আপনি exe ফাইলটা ওয়াইন দিয়ে ওপেন করতে হবে। তাহলেই ইন্সটলের অপশন পাওয়ার কথা।

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s

%d bloggers like this: